সর্বশেষ

  বিয়ানীবাজার পৌরসভার উদ্যোগে যথাযথ মর্যাদায় জাতীয় শোক দিবস পালন   বিয়ানীবাজার উপজেলা প্রশাসনের জাতীয় শোক দিবস পালন   ঢাকা মেডিকেল এলাকায় এডিস মশার আবাসস্থল ধ্বংস করলো যুব ইউনিয়ন   এডিস মশা পানিতে ডিম পাড়ে না, জানালেন বিশেষজ্ঞ   রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী ছাড়া সবাই রাষ্ট্রের চাকর: হাই কোর্ট   মুসলিমদের গরু কুরবানি দিতে নিষেধ করলেন মন্ত্রী!   বিনা পারিশ্রমিকেই খেলবে জিম্বাবুয়ের খেলোয়াড়রা   সিলেটেও ভয়ঙ্কর রূপ নিচ্ছে ডেঙ্গু, ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আক্রান্ত ৫৩ জন   সুপ্রিয় চক্রবর্তী রঞ্জু আর নেই   যার ফোনে ফেরি ছাড়তে দেরি তিনিই করলেন তদন্ত কমিটি!   মুসলিম নির্যাতনের প্রতিবাদ করায় সৌমিত্র-অপর্ণার বিরুদ্ধে দেশদ্রোহের মামলা   মুসলিম নির্যাতনের প্রতিবাদ করায় সৌমিত্র-অপর্ণার বিরুদ্ধে দেশদ্রোহের মামলা   মশক নিবারণ দফতরের গল্প   প্রাণ-আড়ংসহ ১৪ কোম্পানির দুধ উৎপাদন ও বিপণনে নিষেধাজ্ঞা   দুদক টিম দেখে ৮০ লাখ টাকা পাশের বাসার ছাদে ফেলে দেন ডিআইজি পত্নী

সম্পাদকীয়

নিঃশেষে প্রাণ যে করিবে দান...

একুশে পদকপ্রাপ্ত সাংবাদিক গোলাম সারওয়ার আর আমাদের মাঝে নেই

প্রকাশিত : ২০১৮-০৮-১৪ ১৩:০৫:৫৯

রিপোর্ট : সম্পাদকীয়


সাংবাদিকদের অভিভাবক, দেশের সংবাদমাধ্যম জগতের উজ্জ্বল নক্ষত্র, বাংলাদেশের গৌরবোজ্জ্বল স্বাধীনতা সংগ্রামে রণাঙ্গনের অকুতোভয় মুক্তিসেনা, একুশে পদকপ্রাপ্ত সাংবাদিক গোলাম সারওয়ার আর আমাদের মাঝে নেই। সোমবার বাংলাদেশ সময় রাত ৯টা ২৫ মিনিটে সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসকরা  সেই সংবাদটি জানিয়েছেন। সমকাল পরিবারের পক্ষে আমরা তাঁর বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি। শোকসন্তপ্ত পরিবারের সব সদস্য, গুণগ্রাহী ও স্বজন-বন্ধুদের প্রতি জানাচ্ছি গভীর সমবেদনা।

কৈশোরেই গোলাম সারওয়ারের হাতেখড়ি হয়েছিল সাংবাদিকতায়। তারপর ক্রমাগত পথ চলেছেন, ক্ষুরধার লেখনীর পাশাপাশি কাঁধে তুলে নিয়েছেন সম্পাদনা ও পরিচালনার গুরুভার। পাঁচ দশকের বেশি সময় ধরে সক্রিয় ছিলেন এ পেশায়। মুক্তমনের মানুষ ছিলেন। গণতান্ত্রিক মানসিকতা ও ঔদার্যের জন্য সর্বমহলে সুপরিচিত ছিলেন। অসাম্প্রদায়িক ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনা নিজে ধারণ করতেন, যখন  যে সংবাদমাধ্যমে যুক্ত ছিলেন, তার মধ্য দিয়েও তা ছড়িয়ে দিতে সচেষ্ট থাকতেন। দেশের জন্য, সব শ্রেণি-পেশার মানুষের কল্যাণের জন্য ছিলেন নিবেদিত।

বাংলা সংবাদপত্রের আধুনিক ও বৈচিত্র্যময় যে রূপ, তা পুষ্ট করেছেন তিলে তিলে, শ্রম-ঘাম-সৃজনশীলতায়। সম্পাদকের দায়িত্বভার যখন কাঁধে তুলে নিয়েছেন, তখনও বার্তাকক্ষে তাঁর উপস্থিতি ছিল সর্বক্ষণের। কাজ করেছেন নিষ্ঠা ও পরম আন্তরিকতায়। দেশের যে কোনো প্রান্তে যা কিছু ঘটুক না কেন- রাজনীতি-অর্থনীতি-খেলাধুলা-সংস্কৃতি-পরিবেশ, তাঁর তীক্ষষ্ট ও সচেতন দৃষ্টির বাইরে কোনো কিছুই থাকতে পারত না।

নিজের প্রতিষ্ঠান পরিচালনায় সদাসক্রিয় থাকার পাশাপাশি তিনি নতুন প্রজন্মের সংবাদমাধ্যম কর্মী গড়ে তোলায় সব ধরনের সহায়তা দিয়েছেন। সংবাদমাধ্যম-সংশ্নিষ্ট বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের নেতৃত্ব দিয়েছেন। দায়িত্ব পালন করেছেন বাংলাদেশ প্রেস ইনস্টিটিউটের চেয়ারম্যান ও সম্পাদক পরিষদের সভাপতি হিসেবে। বাংলাদেশের সংবাদপত্র-সংশ্নিষ্ট সকলেই তাঁর অভাব প্রতিনিয়ত অনুভব করবে। আমরা কেবল এ সান্ত্বনাই পেতে পারি যে তিনি নিজেকে যেভাবে সংবাদমাধ্যমের জন্য নিঃশেষে উজাড় করে দিয়েছেন, সে পথ ধরে এরই মধ্যে এ পেশায় এগিয়ে এসেছেন অনেকে; ভবিষ্যতেও এ ধারা অব্যাহত থাকবে।

শেয়ার করুন

Print Friendly and PDF


মতামত দিন

Developed By -  IT Lab Solutions Ltd. Helpline - +88 018 4248 5222